নয়াপল্টনে সংঘর্ষ নিয়ে যা বললেন পুলিশ

বিএনপির নেতাকর্মীরা বিনা উসকানিতে পুলিশের ওপর হামলা চালিয়েছে বলে জানিয়েছেন ডিএমপির মতিঝিল বিভাগের উপ-কমিশনার আনোয়ার হোসেন।বুধবার দুপুর ২টার দিকে নয়াপল্টন মোড়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।আনোয়ার হোসেন বলেন, ‘পুলিশ শুধু তাদের রাস্তায় থেকে সরে যেতে বলেছিল, যেন যান চলাচল স্বাভাবিক থাকে। কিন্তু তারা এ কথা না শোনে হঠাৎ করে বিনা উসকানিতে পুলিশের ওপর হামলা করে।

পরে তারা আমাদের (পুলিশের) ২টি গাড়ি পুড়িয়ে দেয়। পুলিশের কয়েকজন সদস্যও এ সময় আহত হয়।’তিনি আরও বলেন, ‘এখন পর্যন্ত পুলিশ ধৈর্য সহকারে পরিস্থিতি সামলানোর চেষ্টা করছে। এ ঘটনায় কাউকেই এখন পর্যন্ত আটক করা হয়নি। আমরা পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করছি ।’প্রতক্ষ্যদর্শীরা জানান, সকাল ১০টা থেকে মনোনয়নপ্রত্যাশীরা বিএনপি কার্যালয়ের সামনে ভিড় করতে শুরু করেন।

একপর্যায়ে নেতাকর্মীদের ভিড়ে রাস্তায় যান চলাচল বন্ধ হওয়ার উপক্রম হয়। এসময় পুলিশ তাদের রাস্তা থেকে সরিয়ে দিতে গেলে পুলিশের সঙ্গে বাকবিতণ্ডায় লিপ্ত হন বিএনপির নেতাকর্মীরা।এক পর্যায়ে বিএনপি কর্মীরা পুলিশের দিকে ঢিল ছুড়তে শুরু করলে পুলিশ টিয়ার শেল ও রাবার বুলেট ছুড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা করে। পুলিশ কিছুটা দূরে সরে গিয়ে নাইটিঙ্গেল মোড়ে অবস্থান নিলে বিএনপি কর্মীরা তখন নয়া পল্টনের সড়কে থাকা বেশ কিছু গাড়ি ভাঙচুর করে। পুলিশের দুটি গাড়িতে আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয়।

বেলা দেড়টার দিকে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা এসে গাড়িতে দেওয়া আগুন নেভাতে কাজ শুরু করেন। বিএনপিকর্মীরা রাস্তা আটকে রাখায় ঘটনাস্থলে পৌঁছাতে বেগ পেতে হয় বলে অগ্নি নির্বাপক বাহিনীর কর্মীরা জানান।বেলা দেড়টার পর সংঘর্ষ কমে এলেও নয়া পল্টনে উত্তেজনা চলছিল। বিএনপি নেতাকর্মীরা কার্যালয়ের সামনে অবস্থান নিয়ে খণ্ড খণ্ড মিছিল করছিলেন।

অন্যদিকে পুলিশ অবস্থান নিয়ে ছিল নাইটিঙ্গেল মোড়ের কাছে। বেলা ২টার সময়ও ওই সড়ক দিয়ে যানবাহন চলাচল বন্ধ ছিল।পুলিশের লাঠিচার্জ, রাবার বুলেট ও টিয়ারগ্যাসে অর্ধশতাধি বিএনপি নেতাকর্মী আহত হয়েছে বলে বিএনপি নেতারা দাবি করেছেন। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত নয়াপল্টন কার্যালয়ের সামনে থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। রাস্তায় অবস্থান নিয়েছে পুলিশ।দলীয় মনোনয়ন ফরম বিক্রির কার্যক্রমের মধ্যেই বুধবার দুপুরে রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে পুলিশের সাথে সংঘর্ষে জড়ায় নেতাকর্মীরা। সংঘর্ষে পুলিশের পিকআপ ভ্যানে আগুন দেয় বিএনপির নেতাকর্মীরা।

One comment

  1. Taxi moto line
    128 Rue la Boétie
    75008 Paris
    +33 6 51 612 712  

    Taxi moto paris

    Does your blog have a contact page? I’m having problems locating it but, I’d like to shoot you
    an e-mail. I’ve got some suggestions for your blog you
    might be interested in hearing. Either way, great blog and I
    look forward to seeing it expand over time.